Text size A A A
Color C C C C
পাতা

সিটিজেন চার্টার

স্থানীয় সরকার, পল্লী ‍উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয় স্থানীয় সরকার বিভাগের অধীন স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি)স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠান সমুহকে কারিগরী সহায়তা প্রদান, পল্লী ও শহরাঞ্চলের অবকাঠামো ‍উন্নয়ন ও রক্ষণাবেক্ষণসহ ক্ষুদ্রাকার পানি সম্পদ উন্নয়নের মাধ্যমে দেশের ‍আর্থসামাজিক অবস্থার ‍উন্নয়ন ও কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টিতে গুরুত্বপূর্ন অবদান রাখছে। একটা সময় ছিল যখন বাংলাদেশে গ্রামীন এলাকার যোগাযোগ অবকাঠামো ছিল অত্যন্ত নাজুক । আজ এলজিইডির মাধ্যমে ব্যাপক ‍উন্নয়ন কর্মকান্ডের মাধ্যমে দেশের সবর্ত্র গ্রামীণ যোগাযোগের ক্ষে‌ত্রে এক বৈপ্লবিক পরিবর্তন এসেছে। আজ গ্রামের উৎপাদিত ফসল বাজারজাত করণ ও পরিবহন সুবিধা বৃদ্ধি পেয়ে কৃষকদের উৎপাদিত পন্যের ন্যায্য মূল্যে প্রাপ্তি নিশ্চিত হচ্ছে।এছাড়াও পরিবেশের ভারসাম্য সংরক্ষণ ও দারিদ্র বিমোচনের লক্ষ্যে সরকারের জাতীয় কর্মসূচি বাস্তবায়নে ও এলজিইডি গুরুত্বপূর্ন ভুমিকা পালন করছে।বাংলাদেশ সরকারের নিজস্ব অর্থয়নে ও উন্নয়ন সহযোগী সংস্থার সহায়তায় এলজিইডি বিভিন্ন প্রকল্প ও কর্মসূচি বাস্তবায়ন করছে।


সিটিজেন চার্টার হল জনগণের সেবা পাওয়ার অধিকারের লিখিত সনদ। এর মাধ্যমে জনসাধারণের আশা আকাঙ্খার প্রতিফলন ঘটিয়ে বিদ্যমান সেবাসমুহের মান উন্নয়নের সুযোগ সৃষ্টি হয় । সিটিজেন চার্টারের মাধ্যমে সেবা গ্রহনকারিদের যথাসময়ে সেবা প্রদান নিশ্চিতকরা হয়। সেবা প্রদানকারী কর্তৃপক্ষের কর্মকান্ডের স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা ও প্রশাসনের গতিশীলতা বৃদ্ধি পায়। সিটিজেন চার্টারের মাধ্যমে সেবা গ্রহণকারী ও প্রদানকারীর মধ্যে পারস্পরিক আস্হা বৃদ্ধি পায়।

 

এলজিইডির মূখ্য দায়িত্বাবলীঃ

 

  • পল্লী ও নগর অঞ্চলে ‍অবকাঠামো উন্নয়নের লক্ষ্যে পরিকল্পনা প্রণয়ন, বাস্তবায়ন ও পরিবীক্ষণ;
  • পল্লী অবকাঠামো রক্ষণাবেক্ষণ;
  • গ্রোথসেন্টার/হাটবাজার উন্নয়নে পরিকল্পনা প্রণয়ন, বাস্তবায়ন ও পরিবীক্ষণ;
  • ইউনিয়ন, উপজেলা, জেলা পরিষদ ও পৌরসভাকে কারিগরী সহায়তা প্রদান;
  • ইউনিয়ন, উপজেলা ও পৌরসভা প্লানবুক, ম্যাপিং ও সড়ক এবং সামাজিক অবকাঠামোর ডাটাবেজ প্রস্তুতকরণ;
  • ক্ষুদ্রাকার পানি সম্পদ উন্নয়ন পরিকল্পনা, বাস্তবায়ন ও পরিবীক্ষণ;
  • বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের অবকাঠামো উন্নয়ন কর্মসূচি বাস্তবায়ন ও পরিবীক্ষণ;
  • জনপ্রতিনিধি, উপকারভোগী, ঠিকাদার, চুক্তিবদ্ধ শ্রমিকদলসমূহের সংশ্লিষ্ট উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে প্রশিক্ষণ;
  • ডিজাইন ও অন্যান্য কারিগরী মডেল, ম্যানুয়েল ও স্পেসিফিকেশন প্রণয়ন;
  • এলজিইডি’র কর্মকর্তা/কর্মচারীদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষতা বৃদ্ধি;

 

 

গ্রামীণ অবকাঠামো

ক্ষুদ্রাকার পানি সম্পদ উন্নয়ন

সড়ক নির্মান/পূননির্মান//পূর্নবাসন

ব্রিজ/কালভার্ট নির্মান/পূন-নির্মান

গ্রাথসেন্টার/ হাটবাজার উন্নয়ন

ঘাট/জেটি নির্মান

ইউনিয়ান পরিষদ ভবন নির্মান

উপজেলা পরিষদ কমপেস্নক্র ভবন নির্মান

ঘুর্নিঝড়/বন্যা আশ্রয়কেন্দ্র নির্মান/পূন-নির্মান

বৃক্ষরোপন কর্মসূচী

ক্ষুদ্র- ঋন কর্মসূচী

কৃষি,মৎস ও পশু সম্পদ উন্নয়ন

অবকাঠামো রক্ষণাবেক্ষণ

 

 

 

 

oবাধ নির্মান

oস্লুইচ গেট নির্মান

oরাবার ড্যাম নির্মান

oখাল খনন ও পূন:খনন

oবন্যা নিয়ন্ত্রন,বাধ নির্মান/পূন:নির্মান

oস্থানীয় পানি ব্যবস্থাপনা সমবায় সমিতিকে(পাবসস)বিভিন্ন

কারিগরী ও জীবিকা উন্নয়নে সহায়তা প্রদান

 

 

এলজিইডির প্রশাসনিক স্তরঃ

এলজিইডির বিস্তৃত কর্মকান্ড পরিচালনার জন্য নিম্নবর্ণিত উপায়ে প্রশাসনিক নেটওয়ার্কসারাদেশে বিস্তৃত আছে

§         এলজিইডির প্রধান প্রকৌশলী দাপ্তরিক প্রধান হিসাবে ‍আগারগাঁও, শেরেবাংলা নগর, ঢাকা-১২০৭অবস্হিত সদর দপ্তরে এলজিইডি দপ্তর পরিচালনা করছেন। তাছাড়া সদর দপ্তরে ৪জন অতিরিক্তপ্রধান প্রকৌশলী, ৭জন তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী, ১৭জন নির্বাহী প্রকৌশলীসহ মোট ১৪৬জন কর্মকর্তাকর্মচারী বিভিন্ন ইউনিটে কর্মরত আছেন ৷ সদর দপ্তরে এলজিইডির কর্মকান্ড নিম্নবর্ণিতইউনিটের মাধ্যমে সম্পন্ন হয়ে থাকেঃ

·         প্রশাসন

·         পরিকল্পনা

·         ডিজাইন

·         সমন্বিত পানি সম্পদ ব্যবস্হাপনা (IWRM)

·         পরিবেশ ব্যবস্হাপনা

·         মনিটরিং ও মূল্যায়ন

·         ম্যানেজমেন্ট ইনফরমেশন সিস্টেম (MIS)

·         জিআইএস (জিওগ্রাফিক্যাল ইনফরমেশন সিস্টেম)

·         নগর ব্যবস্হাপনা

·         মাননিয়ন্ত্রণ

·         প্রশিক্ষণ

·         রক্ষনাবেক্ষণ ব্যবস্হাপনা

·         সড়ক নিরাপত্তা

·         ক্রয় কাযর্ক্রম (Procurement)

·         তথ্য ইউনিট

§         এলজিইডির কর্মকান্ড সারাদেশে ১০টি অঞ্চল যেমন, ঢাকা, চট্টগ্রাম, খুলনা, রাজশাহী, বরিশাল, সিলেট, রংপুর, ময়মনসিংহ, কুমিল্লা এবং ফরিদপুর ‍অঞ্চলের মাধ্যমে বিস্তৃত৷ প্রতিটিঅঞ্চলের দায়িত্বে রয়েছেন একজন তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী । প্রতিটি অঞ্চলে তত্ত্বাবধায়কপ্রকৌশলীর অধীন নির্বাহী প্রকৌশলী এবং সহকারী প্রকৌশলীসহ মোট ৮জন কর্মকর্তা কর্মচারীরয়েছেন-যারা অঞ্চলের আওতাভূক্ত জেলার ন্যস্ত প্রশাসনিক দায়িত্বসহ এলজিইডির কর্মকান্ডমনিটরিং ও তদারকী করে থাকেন;

 

§         ৬৪টি জেলার প্রতিটি জেলা সদরে নির্বাহী প্রকৌশলীর নেতৃত্বে ২জন সহকারী প্রকৌশলীসহ মোট১৩জন কর্মকর্তা/কর্মচারী জেলার সকল এলজিইডির কর্মকান্ড পরিচালনা করছেন । তাছাড়া বৃহত্তরজেলায় ১জন মেকানিক্যাল প্রকৌশলী রয়েছেন;

 

§         ৪৮২ টি উপজেলার প্রতিটিতে উপজেলা প্রকৌশলীর নেতৃত্বে সহকারী উপজেলা প্রকৌশলীসহ মোট১৯জন কর্মকর্তা/কর্মচারী উপজেলা পরিষদের উন্নয়ন কার্মকান্ড ও রক্ষণাবেক্ষণ কর্মকান্ডপরিচালনাসহ এলজিইডির কার্মকান্ড পরিকল্পনা ও তদারকারীতে নিবার্হী প্রকৌশলীকে সহযোগীতাকরে থাকেন।